বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ০২:১৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
বিশ্ব নদী দিব উপলক্ষে গলাচিপা “নেঙর” আয়োজনে রামনাবাদ নদী পরিদর্শন তালা প্রতীক নিয়ে জনপ্রিয়তার শীর্ষে মাসুদ আলম খান। দক্ষিণ এশিয়া বিজনেস এ্যাওয়ার্ড পেলেন এস.এম জাকির হোসেন এম ভি আল ওয়ালিদ-৯ লঞ্চে সন্তান প্রসব, পরিবারের জন্য আজীবন ভাড়া ফ্রী গলাচিপার কৃতি সন্তান মহানগর দক্ষিণ স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি হওয়ায় আনন্দ মিছিল ও বিভিন্ন সংগঠনের অভিনন্দন। রাজৈরে ভোটঘর সোশ্যাল ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং উদ্বোধন মুন্সীগঞ্জে পুলিশের উপর হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মানিকগঞ্জে শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টা চাঁদমারিতে সংঘাত-রক্তপাত, বেপরোয়া আলামিন বাহিনীর বিরুদ্ধে তিন মামলা জেলা পরিষদ নির্বাচনে কামরুলকে প্রার্থী করতে ইউপি সদস্যদের জোট

দ্বিতীয় ধাপে দেশের ৮৩৫ ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে।

দ্বিতীয় ধাপে দেশের ৮৩৫ ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। এবার মোট ২৬টি ইউপিতে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) এবং বাকিগুলোতে ব্যালট পেপারের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) সকাল ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত।

এর আগে দ্বিতীয় ধাপে মোট ৮৪৮টি ইউপির তফসিল ঘোষণা করেছিল নির্বাচন কমিশন (ইসি)। যদিও পরবর্তীকালে ঘোষিত তফসিলের তালিকা থেকে একটি ইউপি বাদ দেওয়া হয়। আর স্থগিত করা হয় সাতটি ইউপির ভোট। এছাড়া সব পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় পাঁচ ইউপিতে এখন আর ভোটের প্রয়োজন পড়ছে না।

ইসির তথ্য মতে, দ্বিতীয় ধাপে চেয়ারম্যান পদে ৮১, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ৭৩ ও সাধারণ সদস্য পদে ২০৩ জন এরই মধ্যে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়লাভ করেছেন।

এ দিকে বুধবার (১০ নভেম্বর) প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদা বলেছিলেন, নির্বাচনি সহিংসতা কঠোর হাতে দমন করার জন্য আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

ইসি জানিয়েছে, এই ধাপের ইউপিতে মোট ভোটকেন্দ্র আট হাজার ৪৯২টি। মোট ভোটার এক কোটি ৬৫ লাখ ৯৫ হাজার ২২৬ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটারের সংখ্যা ৮৪ লাখ পাঁচ হাজার ৮৩১ জন। আর নারী ভোটার ৮১ লাখ ৮৯ হাজার ৩৭৯ জন। এছাড়া তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার রয়েছেন ১৬ জন।

এবার চেয়ারম্যান পদে তিন হাজার ৩১০ জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে নয় হাজার ১৬১ জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ২৮ হাজার ৭৪৭ জন প্রার্থী রয়েছেন। তিন পদে মোট প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৪১ হাজার ২১৮ জন প্রার্থী।

ইসি আরও জানায়, ভোটগ্রহণ উপলক্ষে প্রতিটি কেন্দ্র পাহারায় নিয়োজিত রয়েছে ২০ জনের ফোর্স। নির্বাচনি অপরাধের বিচার ও ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় নিয়োজিত রয়েছে ৬৭০ জন বিচারিক ও নির্বাহী হাকিম। এছাড়াও পুলিশ, আনসার, বিজিবি, র‌্যাব ও কোস্ট গার্ডের ভ্রাম্যমাণ এবং স্ট্রাইকিং ফোর্স দায়িত্ব পালন করছে।



আমাদের ফেসবুক পেজ
ব্রেকিং নিউজ