ঢাকা ০৬:২৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

তিন বাহিনী ও মৎস্য অধিদপ্তরের যৌথ অভিযানে ১৪ লাখ মিটার জাল ধ্বংস

মিঠুন পাল, পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৩:৩৩:৩৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৫ এপ্রিল ২০২৪ ৪৯ বার পড়া হয়েছে
সময়কাল এর সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

পটুয়াখালীর গলাচিপায় তিন বাহিনী ও মৎস্য অধিদপ্তরের যৌথ অভিযানে ১৪ লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করে ধ্বংস করা হয়।
৪ এপ্রিল বৃহস্পতিবার সারাদিন গলাচিপা, রাঙ্গাবালী, ও দশমিনার তেতুলিয়া নদীর অভয়াশ্রম এলাকা এবং ভোলা জেলার চরবেদুড়িয়া থেকে পটুয়াখালী জেলার চররুস্তুম পর্যন্ত এই যৌথ অভিযান পরিচালনা করা হয়। যৌথ অভিযান পরিচালনা করেন র‍্যাব -৮,নৌবাহিনী, কোস্টগার্ড ও জেলা মৎস্য অধিদপ্তর। অভিযানে ৯ জন অপ্রাপ্ত বয়স্ক ও ২১ জন প্রাপ্ত বয়স্ক জেলেকে ১ লাখ ৫ হাজার টাকা জরিমানা করে ছেড়ে দেয়। অভিযানে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন জেলা মৎস্য অফিসার কামরুল ইসলাম, জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশন ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ জিয়াউল হাসান সৌরভ, পটুয়াখালী র‍্যাব- ৮ এর কোম্পানী অধিনায়ক মেজর মোঃ সোহেল রানা,গলাচিপা উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোঃ জহিরুন্নবী। উল্লেখ যে এসময় জেলা মৎস্য অফিসার মোঃ কামরুল ইসলাম বলেন ২ মাস অভয়াশ্রমে কাছাকাছি কোন মাছ শিকার করা যাবেনা। আমাদের এ অভিযান চলমান আছে এবং থাকবে। আমরা অভিযান পরিচালনা করে ১৪ লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করেছি এবং জব্দকৃত কারেন্ট জাল গুলো ঐ স্থানেই পুরিয়ে ধ্বংস করছি। তবে ৯ জন জেলে অপ্রাপ্তবয়স্ক থাকায় তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে এবং ২১ জন জেলেকে জরিমানা ও মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয় হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

তিন বাহিনী ও মৎস্য অধিদপ্তরের যৌথ অভিযানে ১৪ লাখ মিটার জাল ধ্বংস

আপডেট সময় : ০৩:৩৩:৩৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৫ এপ্রিল ২০২৪

পটুয়াখালীর গলাচিপায় তিন বাহিনী ও মৎস্য অধিদপ্তরের যৌথ অভিযানে ১৪ লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করে ধ্বংস করা হয়।
৪ এপ্রিল বৃহস্পতিবার সারাদিন গলাচিপা, রাঙ্গাবালী, ও দশমিনার তেতুলিয়া নদীর অভয়াশ্রম এলাকা এবং ভোলা জেলার চরবেদুড়িয়া থেকে পটুয়াখালী জেলার চররুস্তুম পর্যন্ত এই যৌথ অভিযান পরিচালনা করা হয়। যৌথ অভিযান পরিচালনা করেন র‍্যাব -৮,নৌবাহিনী, কোস্টগার্ড ও জেলা মৎস্য অধিদপ্তর। অভিযানে ৯ জন অপ্রাপ্ত বয়স্ক ও ২১ জন প্রাপ্ত বয়স্ক জেলেকে ১ লাখ ৫ হাজার টাকা জরিমানা করে ছেড়ে দেয়। অভিযানে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন জেলা মৎস্য অফিসার কামরুল ইসলাম, জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশন ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ জিয়াউল হাসান সৌরভ, পটুয়াখালী র‍্যাব- ৮ এর কোম্পানী অধিনায়ক মেজর মোঃ সোহেল রানা,গলাচিপা উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোঃ জহিরুন্নবী। উল্লেখ যে এসময় জেলা মৎস্য অফিসার মোঃ কামরুল ইসলাম বলেন ২ মাস অভয়াশ্রমে কাছাকাছি কোন মাছ শিকার করা যাবেনা। আমাদের এ অভিযান চলমান আছে এবং থাকবে। আমরা অভিযান পরিচালনা করে ১৪ লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করেছি এবং জব্দকৃত কারেন্ট জাল গুলো ঐ স্থানেই পুরিয়ে ধ্বংস করছি। তবে ৯ জন জেলে অপ্রাপ্তবয়স্ক থাকায় তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে এবং ২১ জন জেলেকে জরিমানা ও মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয় হয়েছে।